ধামরাইয়ে আওয়ামী লীগ নেতাকে গণপিটুনি

অক্টোবর ০২ ২০২১, ১৪:৩২

সাভার থানা বাসস্ট্যান্ডে একটি যাত্রীবাহী বাস হকিস্টিক দিয়ে ভাঙচুর করার সময় ধামরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সুয়াপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান সোহরাবকে গণপিটুনির খবর পাওয়া গেছে। পরে পুলিম এসে তাকে রক্ষা করে।

শনিবার দুপুরে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের থানা স্ট্যান্ড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। বাস ভাঙচুরকালে বাসের ভেতরে থাকা চালক ও হেলপারসহ পাঁচ যাত্রী আহত হয়।

আহতরা হলেন আব্দুল মালেক, সিদ্দিক ও মহিফুল। অন্যদের নাম পাওয়া যায়নি। আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানান প্রত্যক্ষদর্শীরা।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শনিবার দুপুরে ঢাকা থেকে যাত্রী নিয়ে লাব্বাইক পরিবহণের একটি বাস নবীনগরের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। বাসটি সাভার থানা স্ট্যান্ডে এলাকায় পৌঁছালে একই স্থানে ইউপি চেয়ারম্যান ব্যক্তিগত প্রাইভেটকার নিয়ে ধামরাইয়ের দিকে যাচ্ছিলেন। এ সময় প্রাইভেটকারের সঙ্গে লাব্বাইক পরিবহণের সামান্য ঘষা লাগে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে চেয়ারম্যান গাড়িতে থাকা হকিস্টিক দিয়ে ওই বাস ভাঙচুর চালায়। এসময় চালক ও হেলপার এগিয়ে আসলে তাদেরকে হকি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।

এছাড়া বাস যাত্রী কয়েকজনকে পিটিয়েছে বলে স্থানীয়দের অভিযোগ। এ ঘটনায় অন্য যাত্রীরা ক্ষিপ্ত হয়ে আ.লীগ নেতা ও ইউপি চেয়ারম্যানকে গণপিটুনি শুরু করে। খবর পেয়ে সাভার মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ।

সাভার মডেল থানার এসআই শফিকুল ইসলাম বলেন, গণপিটুনির খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে পুলিশ। পাশাপাশি ইউপি চেয়ারম্যানকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করা হয়। তবে এ ঘটনায় কেউ লিখিত অভিযোগ করলে তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানান তিনি।

Share Button